প্রচ্ছদ

ইফতারে তেল জাতীয় খাবার খেলে ক্যান্সার হতে পারে!

প্রকাশিত হয়েছে : ২:৪১:৩৫,অপরাহ্ন ২৮ মে ২০১৮ | সংবাদটি ৬৬ বার পঠিত

সিলেট নিউজ ওয়ার্ল্ড ডটকম

সারাদিন রোজা রাখার পর ইফতারে আমারা একটু তেল জাতীয় খাবার খেতেই পছন্দ করি। তবে ইফতারে তেল জাতীয় খাবার না খেতে পরামর্শ দিয়েছেন ডাক্তাররা। তবে খেলেও কম পরিমাণে খাওয়া উচিত। অতিরিক্ত তেল–মশলা যুক্ত খাবারও শরীরের পক্ষে ক্ষতিকারক। অতিরিক্ত ফ্যাট বা তেল জাতীয় খাবার খেলে কী কী সমস্যা হতে পারে তা দেখে নেওয়া যাক:-

১.‌ ওজন বৃদ্ধি: অতিরিক্ত ফ্যাট জাতীয় খাবার খেলে শরীরের ওজন বৃদ্ধি পায়। যখনই শরীরে অতিরিক্ত ক্যালরি ঢোকে, আমাদের পেশীগুলো ফুলে যায়। এই অবস্থা দীর্ঘদিন চলতে থাকলে স্বাভাবিকভাবেই শরীরের ওজন বৃদ্ধি পাবে। যা স্বাস্থ্যের পক্ষে ক্ষতিকর। ডায়াবেটিস, হার্টের অসুখ, ক্যানসার, গলব্লাডার, হাইপারটেনশনের মতো রোগ শরীরে বাসা বাঁধতে পারে। তাই ইফতারে অতিরিক্ত তেল ও ফ্যাট জাতীয় খাবার বর্জন করাই ভাল।

২.‌ হার্টের অসুখ: ফ্যাট জাতীয় খাবারে থাকে অতিরিক্ত কোলেস্টেরল। শরীরের বৃদ্ধির জন্য কোলেস্টেরল দরকার। কিন্তু অতিরিক্ত হলেই বিপদ। রক্তে কোলেস্টেরলের পরিমাণ বৃদ্ধি পেলে হার্টের অসুখ হতে পারে। কারণ কোলেস্টেরলের পরিমাণ বৃদ্ধি পেলে রক্ত চলাচলে সমস্যা হয়। তখন হার্টের অসুখ হতে বাধ্য। ধমনীতে চর্বি জমে গেলে পরিস্থিতি বাইপাস সার্জারির দিকে গড়াতে পারে।

৩.‌ ক্যান্সার : অতিরিক্ত ফ্যাট বা তেল জাতীয় খাবার খেলে স্তন ক্যান্সার, কোলন ক্যান্সার বা ফুসফুস ক্যানসার হতে পারে। প্রতিদিন ফ্যাট জাতীয় খাবার খেলে শরীরে ১০ শতাংশ ক্যালরি বৃদ্ধি পায়। যা একটা সময়ের পর স্তন ক্যান্সারের দিকে যেতে পারে। তাই মেয়েরা সাবধান। অতিরিক্ত ফ্যাট জাতীয় খাবার খাবেন না।



দেশ-বিদেশের পাঠক

আর্কাইভ

জুন ২০১৮
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« মে    
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০