প্রচ্ছদ

পাকিস্তানে মার্কিন কূটনীতিককে দেশ ত্যাগে বাধা

প্রকাশিত হয়েছে : ১২:২২:৪৭,অপরাহ্ন ১৩ মে ২০১৮ | সংবাদটি ৪২ বার পঠিত

সিলেট নিউজ ওয়ার্ল্ড ডটকম

যুক্তরাষ্ট্রের একজন কূটনীতিককে দেশ ছাড়তে দেয়নি পাকিস্তান, কারণ তার বিরুদ্ধে সিগন্যাল অমান্য করে গাদি চালিয়ে একজন মোটরসাইকেল চালককে হত্যার অভিযোগ রয়েছে।পাকিস্তানের স্থানীয় গণমাধ্যম বলছে, পাকিস্তানে মার্কিন ডিফেন্স অ্যাটাচে কর্নেল ইমানুয়েল হলকে নেয়ার জন্য একটি বিমান পাঠিয়েছিল যুক্তরাষ্ট্র। কিন্তু তাকে পাকিস্তান ছাড়ার অনুমতি দেয়া হয়নি।

এর আগে মার্কিন কর্মকর্তারা বলছিলেন, তাকে গ্রেপ্তার বা বিচার করা যাবে না, কারণ তার কূটনৈতিক অব্যাহতি রয়েছে।এই ঘটনা দুই দেশের মধ্যে রাজনৈতিক উত্তেজনা আরো বাড়িয়ে দিয়েছে।গত ৭ই এপ্রিল ইসলামাবাদে একটি সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যান ২২ বছর বয়সী আতিক বেগ।

সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায় যে, একটি সংযোগ সড়কে লাল বাতি থাকা সত্ত্বেওে একটি সাদা ফোর হুইল ড্রাইভ গাড়ি অমান্য করে অতিক্রম করছে। তখন ওই মোটরসাইকেলের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়। এ সময় গাড়িটি কর্নেল হল চালাচ্ছিলেন বলে বলা হয়েছে।

তবে এ সময় কর্নেল হল মদ্যপ অবস্থায় গাড়িটি চালাচ্ছিলেন বলে যে খবর প্রকাশিত হয়েছে পাকিস্তানের গণমাধ্যমে, তা নাকচ করেছে পাকিস্তানে মার্কিন দূতাবাস।ইসলামাবাদের হাইকোর্টে কর্নেল হলের বিচারের দাবি তুলেছেন নিহত আতিক বেগের বাবা।শুক্রবার ইসলামাবাদ হাইকোর্ট রুল জারি করেছে যে, কর্নেল হল সম্পূর্ণভাবে কূটনৈতিক অব্যাহতি পাবেন না।

ইতোমধ্যেই তার নাম ভ্রমণের কালো তালিকায় যোগ করা হয়েছে। এর মানে, তিনি পাকিস্তানের কোন বিমানবন্দর থেকেই দেশের বাইরে যেতে পারবেন না।তবে এ ব্যাপারে মন্তব্য করতে রাজি হয়নি পাকিস্তান অথবা যুক্তরাষ্ট্রের কোন কর্মকর্তা।

গত জানুয়ারিতে যখন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প টুইট করেন যে, পাকিস্তান মিথ্যা আর ধোঁকা দিচ্ছে। সে মাসেই মার্কিন সরকার ঘোষণা দেয় যে, তারা পাকিস্তানের জন্য বরাদ্দ নিরাপত্তা সহায়তার প্রায় সবটাই কাটছাঁট করছে। কারণ দেশটি তাদের মাটিতে জঙ্গি নেটওয়ার্ক ঠেকাতে ব্যর্থ হয়েছে।ওই অভিযোগ অস্বীকার করেছে পাকিস্তান। দেশটি ঘোষণা দিয়েছে, তারা যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আর কোন গোয়েন্দা তথ্য বিনিময় করবে না।
সূত্র-বিবিসি বাংলা



দেশ-বিদেশের পাঠক

আর্কাইভ

মে ২০১৮
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« এপ্রিল    
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০৩১