প্রচ্ছদ

বিতর্কিত বিপ্লব!

সিলেট নিউজ ওয়ার্ল্ড ডটকম

রাজনীতির মাঠে অনেক চড়াই-উৎরাই পার করে পদ পেয়ে গেছেন ত্রিপুরার বিপ্লব কুমার দেব। এখন আবার তিনি ত্রিপুরা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী। রাজ্যের মসনদে বসার পর থেকে একের পর এক বেফাঁস মন্তব্য করে জড়িয়ে পড়ছেন বিতর্কে। যেন কথায় ‘বিপ্লব’ ঘটিয়ে চলছেন বিপ্লব দেব। এবার কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের নোবেল নিয়ে বিতর্কের সৃষ্টি করলেন ত্রিপুরার এ মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেছেন, ‘ইংরেজদের বিরোধিতায় নোবেল বর্জন করেছেন রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর।’ জানাগেছে, গত বুধবার রবীজয়ন্তীতে এক অনুষ্ঠানে মুখ্যমন্ত্রী এ মন্তব্য করেন। তার এ মন্তব্যে সমালোচনার ঝড় উঠেছে। তবে এবারই প্রথম নয়। এর আগেও একাধিকবার নানা বাক্য-বিভ্রাট ঘটিয়েছেন বিপ্লব। কখনও বলেছেন, মহাভারতের যুগে ইন্টারনেটের অস্তিত্ব, সিভিল সার্ভিসে সিভিল ইঞ্জিনিয়ারদের যোগদান তত্ত্ব, বিশ্বসুন্দরী তত্ত্ব, সরকারি চাকরির প্রতি যুবসম্প্রদায়ের আগ্রহ সম্পর্কে তার নিজস্ব মতামত একের পর এক বিষয়ে বেফাঁস কথা বেরিয়ে এসেছে ত্রিপুরা নবনির্বাচিত মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের মুখ থেকে। নতুন প্রজন্মের কাছে নিজস্ব ভঙ্গিতে তার পরামর্শ ছিল, চাকরির বদলে গরুর দুধ বিক্রি করলে ১০ বছরের মধ্যে ১০ লক্ষ টাকার মালিক হয়ে যাবেন।’ ডায়না হেডেন বিশ্বসুন্দরীর প্রতিযোগিতা জেতার যোগ্য ছিলেন না বলে মন্তব্য করে বিতর্কের সৃষ্টি করেছিলেন তিনি। আগরতলার একটি ডিজাইন ওয়ার্কশপে বিপ্লব দেব বলেছিলেন, ‘ভারতীয় সুন্দরীকে লক্ষ্মী বা সরস্বতীর মতো দেখতে হওয়া উচিৎ। ডায়না হেডেন মিস ওয়ার্ল্ড শিরোপা পাওয়ার যোগ্য ছিলেন না। আসলে আন্তর্জাতিক বাজারের স্বার্থ রক্ষার কথা মাথায় রেখেই ওই পরিকল্পনা তৈরি করা হয়েছিল। একমাত্র ঐশ্বরিয়া রাই-ই শিরোপা পাওয়ার যোগ্য। কারণ তিনি বিশুদ্ধ ভারতীয় মহিলা হিসেবে প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন।’ তার এই মন্তব্যের পর কড়া প্রতিক্রিয়া জানান ডায়না হেডেন। তিনি বলেন, ‘আমার গায়ের কালো রঙের জন্য ছোটবেলা থেকে অনেক তির্যক মন্তব্যের মুখোমুখি হয়েছি। আমার সফল্যের জন্য অকারণ সমালোচনা না করে গর্ব করা উচিৎ। আমি একজন গর্বিত বাদামি ভারতীয়। আমার সম্পর্কে এরকম মন্তব্য করার আগে মন্ত্রীর সাবধান হওয়া উচিৎ।’ সোশ্যাল মিডিয়াতেও সমালোচিত হয় বিপ্লব দেবের মন্তব্য। চাপের মুখে শুক্রবার রাতে নিজের মন্তব্যের জন্য ক্ষমা চেয়ে নেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী। এমন নানা মন্তব্যে দেশ জুড়ে সমালোচনার সৃষ্টি করে চলছেন ত্রিপুরার নতুন এ মুখ্যমন্ত্রী। একাধিক এমন মন্তব্যের পরও তার এমন কথা বলা থামছে না। মহাভারতের যুগে ইন্টারনেটের অস্তিত্ব, সিভিল সার্ভিসে সিভিল ইঞ্জিনিয়ারদের যোগদান তত্ত্ব, বিশ্বসুন্দরী তত্ত্ব, সরকারি চাকরির প্রতি যুবসম্প্রদায়ের আগ্রহসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে মন্তব্য করার জের ধরে সম্প্রতি তাকে তলবও করেছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

দেশ-বিদেশের পাঠক

আর্কাইভ

নভেম্বর ২০১৮
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« অক্টোবর    
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০