প্রচ্ছদ

কিশোরকে উল্টো করে ঝুলিয়ে অমানবিক নির্যাতন (ভিডিও)

প্রকাশিত হয়েছে : ১২:৫৪:৫৩,অপরাহ্ন ০৫ মার্চ ২০১৮ | সংবাদটি ২৭৩ বার পঠিত

সিলেট নিউজ ওয়ার্ল্ড ডটকম

নওগাঁর পত্নীতলায় চুরির অভিযোগে এক কিশোরকে উল্টো করে ঝুলিয়ে বেধড়ক পেটানো হয়েছে। এ ঘটনার একটি ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।

শনিবার উপজেলার আকবরপুর ইউনিয়ন পরিষদের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

নির্যাতনের ভিডিওটি আদনান রহমান নামে এক ব্যক্তির ফেসবুক আইডিতে শনিবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে আপলোড করা হয়। তবে পুলিশ এখনও পর্যন্ত জড়িতদের কাউকে খুঁজে পায়নি।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, শুক্রবার উপজেলার মধইলহাটে একজনের পকেট থেকে টাকা নিতে গিয়ে ধরা পড়ে ওই কিশোর। স্থানীয়রা তাকে চড়-থাপ্পড় দিয়ে ছেড়ে দেয়। পরবর্তীতে কয়েকজন মিলে আবার তাকে আটক করে আকবরপুর ইউনিয়ন পরিষদের সামনে নিয়ে বাঁশের সঙ্গে বেঁধে উল্টো করে ঝুলিয়ে নির্যাতন চালায়।

ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, প্রথমে ওই কিশোরের দুই পা বেঁধে ফেলেন এক ব্যক্তি। অপর ব্যক্তি তার দুই পায়ের মাঝখান দিয়ে বাঁশ ঢুকিয়ে দেন। এরপর দুজনে মিলে কাঁধে নিয়ে তাকে উল্টো করে উঁচু করে ঝুলিয়ে রাখেন। আর কালো গেঞ্জি পরা এক ব্যক্তি লাঠি দিয়ে কিশোরের পায়ের তালুতে বেধড়ক পেটাতে থাকেন। এক পর্যায়ে ছেলেটি লাঠির আঘাতের যন্ত্রনা সইতে না পেরে নির্যাতনকারী যুবকের পা জড়িয়ে ধরে আকুতি মিনতি করতে থাকে। কিন্তু তাতেও মন গলে না তাদের। এরপর নির্যাতনকারী ওই যুবক কিশোরের বুকের ওপর উঠে পা দিয়ে তার গলা চেপে ধরেন আর পেটাতে থাকেন। আর এ অবস্থায় অন্য দুজন ওই কিশোরকে টেনে-হিঁচড়ে নিয়ে যেতে থাকেন।

আকবরপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল হোসেন বলেন, শুক্রবার ছুটির দিন হওয়ায় ইউনিয়ন পরিষদ বন্ধ থাকে। কিশোরকে পেটানোর পর ভিডিও করা হয়েছে বলে লোকমুখে শুনেছি।

পত্নীতলা থানার ওসি মোজাহার হোসেন বলেন, ভিডিওটি দেখে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে খোঁজ খবর নেয়ার চেষ্টা করেছি। নির্যাতনের শিকার কিশোরটিকে খুঁজে পাচ্ছি না এবং তার কোনো ঠিকানাও পাচ্ছি না।

ওসি আরও জানান, যে আইডি থেকে ভিডিওটি পোস্ট করা হয়েছে, সেটা খুঁজতে গেলে একই নামে ২০-২৫টি আইডি আসছে। তবে বিষয়টি আমরা খতিয়ে দেখছি।

Media it

দেশ-বিদেশের পাঠক

আর্কাইভ

সেপ্টেম্বর ২০১৮
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« আগষ্ট    
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০