প্রচ্ছদ

রঞ্চির ঝড়ো ব্যাটিংয়ে বড় সংগ্রহের পথে চিটাগং

সিলেট নিউজ ওয়ার্ল্ড ডটকম

প্রথম ম্যাচেও দলকে ভালো শুরু এনে দিয়েছিলেন লুক রঞ্চি। কিন্তু তিনি আউট হয়ে গেলে দলের আর কেউ হাল ধরতে পারেননি। আজ (বুধবার) নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে শক্ত হাতেই দলের হাল ধরেছেন লুক রঞ্চি। মাত্র ১৯ বলেই তুলে নিয়েছেন হাফ সেঞ্চুরি।

তবে এটি বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) দ্রুততম হাফ সেঞ্চুরি না। বিপিলের দ্রুততম হাফ সেঞ্চুরিটি রয়েছে পাকিস্তানি আহমেদ শেহজাদের দখলে। ১৬ বলে তিনি হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করেছিলেন। তবে এ আসরের এখন পর্যন্ত এটাই দ্রুততম হাফ সেঞ্চুরি।

টস হেরে ভাইকিংসদের হয়ে ওপেন করতে আসেন লুক রঞ্চি ও সৌম্য সরকার। মাত্র ৪ ওভার ৪ বলেই এ দু’জন মিলে করেন ৫৯ রানের জুটি। যার মধ্যে সৌম্য সরকারের অবদান মাত্র ৭। সাত রান নিয়েই মাশরাফির বলে জিয়াউর রহমানের হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন সৌম্য। তার আগেই রঞ্চি তুলে নেন এ আসরের দ্রুততম হাফ সেঞ্চুরি

এরপর দিলশান মোনাভিরাকে নিয়ে আরও মারমুখী হয়ে ওঠেন। দু’জনে মিলে করেন ৪০ রানের জুটি। তবে নবম ওভারে রবি বোপারের বল হাওয়ায় ভাসিয়ে খেলতে চায় রঞ্চি যেটা বেশ উপরে ওঠে ধরা পরে বাউন্ডারিতে দাঁড়ানো জিয়াউর রহমানের হাতে। ফলে ৩৫ বলে ৭ ছয় আর ৭ চারে সাজানো ৭৮ রানের রাজকীয় ইনিংসের সমাপ্তি ঘটে।

এরপর বোপারা আবারও আঘাত হানে ভাইকিংস শিবিরে। ২০ রান করা মোনাভিরাকে সরাসরি বোল্ড করে সাজঘরে ফেরান বোপারা। উইকেটে নতুন ব্যাটসম্যান হিসেবে এসেছেন লুইস রিকি । আর অধিনায়ক মিসবাহ-উল-হক ৭ রানে অপরাজিত আছে। চট্টগ্রামের সংগ্রহ ১২ ওভারে ৩ উইকেটে ১১৯ রান।

প্রথম ম্যাচ রংপুর জয় পেয়ে চিটাগংয়ের চেয়ে বেশ খানিকটা এগিয়ে রয়েছে। আর চিটাগং প্রথম ম্যাচ হারার কারণে আজকের ম্যাচে জয়ের বিকল্প অন্য কিছুই ভাবছে না।